Header Ads

আজ বাংলা
ইংরেজি

নেতা নয় ; মানবতার সেবায় কাজ করতে চাই




মৌলভীবাজার জেলার রাজনগর উপজেলার ২নং উত্তরভাগ ইউনিয়নে জন্ম গ্রহণ করেন, এম.সোহেল আলম।

জন্মভূমিতেই তাঁর বেড়ে উঠা। শুনেছেন, গরিবের আর্তনাদ। দেখেছেন না খেয়ে বেঁচে থাকা মানুষের চোখের পানি। 

শুধু যে দেখেছেন এমন নয়, নিজ সামর্থ্যনুযায়ী সহযোগিতার হাত প্রসারিত করেছেন মানবসেবায়। 

যুবক ও শিক্ষার্থীদের সাথে ইউনিয়নের  অবকাঠামো উন্নয়ন সংস্কারে অবদান রেখে চলছেন।
গরিব,অসহায় শিক্ষার্থীদেরকে বই, খাতা, কলম ও আর্থিক সহযোগিতা করে, সুশিক্ষা গ্রহণে অগ্রণী ভূমিকা রাখছেন । উনি যে শিক্ষানুরাগী। 

ইউনিয়নের যেসকল এলাকার সড়ক চলার অনুপযোগী,নিজ খরচে সংস্কার করে চলার উপযোগী করেছেন।

তাঁর মতো সুস্থসংস্কৃতিপ্রিয় মানুষ পাওয়া দুষ্কর। যুবকরা নেশা, জুয়া সহ সকল খারাপ কাজ থেকে যাতে দূরে থাকে, সে উদ্দেশ্যে কাজও করে যাচ্ছেন।

ইউনিয়নের যুবকদের নিয়ে খেলাধুলা, গজলসন্ধ্যা,সাংস্কৃতিক ও ধর্মীয় অনুষ্ঠানসহ বিভিন্ন সামাজিক কাজ করে যাচ্ছেন সে বাল্যকাল থেকেই।

৫ই ডিসেম্বর ২০২০ তারিখ আলাপচারীতায় এসকল তথ্য দিয়ে ইউনিয়নের ছাত্র ও যুবকরা, আগামি ইউ.পি নির্বাচনে এম.সোহেল আলমকে উত্তরভাগ ইউনয়নের চেয়ারম্যান হিসেবে দেখার ইচ্ছা পোষণ করেন।

এম.সোহেল আলম সুন্নাহ বিডিকে বলেন, "আমি নেতা হতে চাইনা, মানবতার সেবায় কাজ করতে চাই "
আমি চাই গরিবের পাতে দু মুটো ভাত তুলে দিতে। না খেয়ে কেউ উপোষ থাকবে, আর আমি খেয়ে ঘুমাবো!  তা মেনে নিতে পারিনা। আমার কষ্ট হয়। 
অর্থাভাবে শিক্ষার্থী শিক্ষাগ্রহণ থেকে ঝড়ে পড়বে, আর আমি সহযোগিতার হাত বাড়াবোনা, তা হতে পারেনা।

জনগণের টাকা অহেতুক নষ্ট হবে অন্যদিকে জনগণ অভাবে দিনযাপন করবে, এটা জেনেও চুপ থাকাটা অন্যায়। 

আমার যুবক ভাইগুলো চাকরি না পেয়ে মাদকাসক্ত হওয়ার উপক্রম হবে, আমি নীরবে দেখে যাবো তা হতেই পারেনা। 
আমি চাই, আমার ভাইগুলো যেকোন হালাল রুজি করুক।  সুস্থসংস্কৃতিতে ফিরে আসুক।

তাদের প্রতি আমার ভালোবাসা তাদের মা-বাবার মতোই।
আমি যে তাদের'ই একজন। তাদের সাথে বেড়ে উঠা তাদের এক ভাই।

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.